নিষেধাজ্ঞা কমাতে আকমলের আপিল

স্পোর্টসমেইল২৪ স্পোর্টসমেইল২৪ প্রকাশিত: ১১:২০ পিএম, ১৯ মে ২০২০
নিষেধাজ্ঞা কমাতে আকমলের আপিল

ফাইল ছবি

আইসিসির দুর্নীতি বিরোধী ধারা ভঙের দায়ে এপ্রিলে পাকিস্তানে মিডল-অর্ডার ব্যাটসম্যান উমর আকমলকে তিন বছরের নিষিদ্ধ করেছিল পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। এক মাসের মাথায় এই শাস্তির বিরুদ্ধে আপিল করেছেন তিনি।

দুর্নীতির প্রস্তাব পেয়ে তা গোপন করার দায়ে উমরকে এ নিষেধাজ্ঞা দিয়েছিল পিসিবি। পিএসএলের গত আসর শুরুর আগে এ প্রস্তাব পেয়েছিলেন তিনি। এরপর এপ্রিলে তিন বছরের জন্য নিষিদ্ধ করা হয় এই ব্যাটসম্যানকে।

সে সময়েই এই সিদ্ধান্তের বিপক্ষে লড়াই করার কথা জানিয়েছিলেন উমর। পিসিবির শৃঙ্খলা আইনের ২.৪.৪ ধারা ভঙ্গ করায় এতো বড় শাস্তি পেয়েছিলেন ডানহাতি এই ব্যাটসম্যান। শাস্তির মেয়াদ কমানোর আশায় আপিল দায়ের করেছেন তিনি।

আরও কম শাস্তি পেতে পারতেন উমর। যদি জিজ্ঞাসাবাদের সময় বিচারকার্যে সঠিকভাবে সহায়তা করতেন। কিন্তু পিসিবিকে সহায়তা না করায় এবং অসংলগ্ন উত্তর প্রদানের জন্য ৩ বছরের জন্য নিষিদ্ধ করা হয়েছে তাকে।

এই ধরণের অপরাধের জন্য সর্বনিম্ন ৬ মাস থেকে শুরু করে আজীবন পর্যন্ত নিষিদ্ধ করার শাস্তির বিধান আছে। আইসিসির অ্যান্টি করাপশন ২.৪.৪ ও ২.৪.৫ ধারায় বলা আছে, যদি কোনো ক্রিকেটার বাজিকরদের বাজে প্রস্তাব জানাতে ব্যর্থ হলে কমপক্ষে পাঁচ বছরের সাজা দেয়া হবে।

পাকিস্তানের পক্ষে ১৬টি টেস্ট, ১২১টি ওয়ানডে ও ৮৪টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলেছেন উমর। দেশের হয়ে ওয়ানডে খেলেছেন সর্বশেষ প্রায় ১৪ মাস আগে। টি-টোয়েন্টি খেলেছেন প্রায় ৮ মাস আগে। সর্বশেষ টেস্ট খেলেছেন ২০১১ সালে, জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে।

[sportsmail24.com এর ওয়েবসাইট এখন sportsmail.com.bd ঠিকানাতেও ব্রাউজ করে পড়তে পারবেন। এছাড়া অ্যান্ড্রয়েড মোবাইল ফোনে স্পোর্টসমেইল২৪.কমের অ্যাপস থেকেও খেলাধুলার সকল নিউজ পড়তে পারবেন। ইনস্ট্রল করুন স্পোর্টসমেইল২৪.কমের অ্যাপস ]


শেয়ার করুন :


আরও পড়ুন

আবাহনীর হয়ে খেলতে আসার গল্প শোনালেন ওয়াসিম আকরাম

আবাহনীর হয়ে খেলতে আসার গল্প শোনালেন ওয়াসিম আকরাম

ওয়ার্নের অভিযোগ উড়িয়ে দিলেন ওয়াহ

ওয়ার্নের অভিযোগ উড়িয়ে দিলেন ওয়াহ

টেন্ডুলকারের দাঁড়িয়ে সুবিধা, আমার নড়াচড়ায় : কোহলি

টেন্ডুলকারের দাঁড়িয়ে সুবিধা, আমার নড়াচড়ায় : কোহলি

আম্পায়ার বাছাইয়ে সুযোগ বাড়ছে আয়োজক দেশের

আম্পায়ার বাছাইয়ে সুযোগ বাড়ছে আয়োজক দেশের