জাতীয় দলে না ফেরার ইঙ্গিত দিলেন ওয়ার্নার

স্পোর্টস মেইল২৪ ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৬:৪৩ পিএম, ৩১ মার্চ ২০১৮
জাতীয় দলে না ফেরার ইঙ্গিত দিলেন ওয়ার্নার

বল টেম্পারিং পরিকল্পনার জড়িত থাকায় ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া (সিএ) কর্তৃক সব ধরনের ক্রিকেট থেকে এক বছরের জন্য নিষেধাজ্ঞা পাওয়া দেশটির মারকুটে ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নার ভবিষ্যতে জাতীয় দলের হয়ে না খেলার ইঙ্গিত দিয়েছেন।

কেপটাউনে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে তৃতীয় টেস্টে বল টেম্পারিং-এ পরিকল্পনার অংশ ছিলেন ওয়ার্নার। দেশে ফিরে এক সংবাদ সম্মেলনে এ কেলেঙ্কোরীরর সাথে জড়িত থাকায় দুঃখ প্রকাশ করতে গিয়ে কেঁদে ফেলেন তিনি।

কেপ টাউন টেস্টের তৃতীয় দিন অস্ট্রেলিয়ার ওপেনার ক্যামেরুন ব্যানক্রফট বল টেম্পারিং করেন। পরের জানা যায়, বল টেম্পারিংয়ের পরিকল্পনায় ছিলেন দলের সিনিয়র খেলোয়াড়রা। তাই ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার (সিএ) তদন্ত কমিটিতে নাম উঠে আসে স্টিভেন স্মিথ ও ওয়ার্নারের নাম। এ জন্য সিএ এক বছরের জন্য নিষিদ্ধ করেন স্মিথ ও ওয়ার্নারকে। ৯ মাসের নিষিদ্ধ হন ব্যানক্রফট। ফলে দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে জোহানেসবার্গে চলতি টেস্টে খেলতে পারছেন না স্মিথ-ওয়ার্নার-ব্যানক্রফট।

ইতোমধ্যে দেশে ফিরে গেছেন স্মিথ-ওয়ার্নার-ব্যানক্রফট। দেশে ফিরে আগেই নিজেদের প্রতিক্রিয়া জানান স্মিথ ও ব্যানক্রফট। বাকি ছিলেন ওয়ার্নার। আজ (শনিবার) সেটিও সম্পন্ন হলো। সংবাদ সম্মেলনে দুঃখ প্রকাশ, ক্ষমা চাওয়ার পাশাপাশি দুই নয়ন ভিজিয়েছেন ওয়ার্নার। তবে সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের অনেক প্রশ্ন এড়িয়েও যান তিনি।

অবশ্য পরে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রশ্ন এড়িয়ে যাবার ব্যাপারে টুইটও করেছেন ওয়ার্নার, ‘অনেক প্রশ্নেরই জবাব দিতে পারিনি। তবে ভবিষ্যতে আমি সব প্রশ্নেরই জবাব দেওয়ার চেষ্টা করব।’

তারপরও যতটুকু বলেছেন তার মধ্যে ইঙ্গিত ছিলো- ভবিষ্যতে জাতীয় দলের হয়ে আর নাও খেলতে পারেন ওয়ার্নার। তিনি বলেন, ‘আমি আশা করছি, হয়তো আবার দেশের জন্য খেলার সুযোগ দেয়া হবে। কিন্তু সেটা হয়তো ঘটবে না ধরে নিয়েই সরে দাঁড়াচ্ছি।’

একই সঙ্গে নিষেধাজ্ঞার বিপক্ষে আপিল করার ইঙ্গিতও দিয়ে রাখলেন ওয়ার্নার। তিনি বলেন, ‘এমন কিছু নিয়ে আলাপ করতে আমি আমার পরিবারের সাথে বসতে যাচ্ছি। তবে আমি কোন প্রকার সিদ্বান্ত নেয়ার আগে সমস্ত বিষয়গুলো বিবেচনা করব।’

বল টেম্পারিংয়ের দায় নিয়ে দুঃখ প্রকাশও করেছেন ওয়ার্নার। দুঃখ প্রকাশ করার সময় চোখ ভিজিয়েছেন জলে। সংক্ষিপ্ত আকারে তিনি বলেন, ‘কেপটাউনের তৃতীয় দিনে যা ঘটেছে, তার সম্পূর্ণ দায় আমার। এটি এতই বেদনাদায়ক যে, আমি যত দিন বেঁচে থাকব ততোদিন এ বিষয়টি আমাকে পীড়া দেবে। এটি খুবই যুক্তিযুক্ত, আমি গভীরভাবে দুঃখিত। অস্ট্রেলিয়ার জনগণের সম্মান ফিরিয়ে দিতে যা করার দরকার সবই করব আমি।’

তারপরও এই ক্রিকেটের মাধ্যমে নিজের দেশকে বিশ্বের কাছে গর্বিত করার কথা জানালেন ওয়ার্নার, ‘আমি সত্যিই বলছি, আমি কেবল ক্রিকেট খেলার মাধ্যমে আমার দেশকে গর্বিত করার চেষ্টা করব।’


শেয়ার করুন :


আরও পড়ুন

চারদিকে কান্নার রোল, ঘুরে দাঁড়াতে পারবে অস্ট্রেলিয়া?

চারদিকে কান্নার রোল, ঘুরে দাঁড়াতে পারবে অস্ট্রেলিয়া?

পদত্যাগই করলেন লেহম্যান

পদত্যাগই করলেন লেহম্যান

কাঁদলেন স্মিথ, ক্ষমাও চাইলেন

কাঁদলেন স্মিথ, ক্ষমাও চাইলেন

ওয়ার্নারের স্থানে সাকিবদের অধিনায়ক উইলিয়ামসন

ওয়ার্নারের স্থানে সাকিবদের অধিনায়ক উইলিয়ামসন