জয়ের ধারা অব্যাহত রাখতে চান মাশরাফি

স্পোর্টস মেইল২৪ ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৬:৫৫ এএম, ২৪ জুলাই ২০১৮
জয়ের ধারা অব্যাহত রাখতে চান মাশরাফি

টেস্ট সিরিজে চরমভাবে বিধ্বস্ত হবার পর ওয়ানডে উড়ন্ত সূচনা করেছে বাংলাদেশের। ওয়ানডে সিরিজ শুরুর আগে মাশরাফি পুরো দলকে কী বলেছিলেন? মাশরাফির উত্তর, ‘বিশেষ কিছু বলার ছিল না। শুধু বলেছিলাম, দেশের জন্য নিজেদেরকে উজাড় করে দিতে। টেস্ট সিরিজের কথা ভুলে গিয়ে নতুনভাবে সবকিছু শুরু করতে। শুরুটা ভালো হলে আত্মবিশ্বাস বেড়ে যায় এবং পরবর্তীতে কাজও সহজ হয়ে যায়।’

নিজেদের পরিকল্পনাগুলো কাজে লেগেছে উল্লেখ করে জয়ের এ ধারা অব্যাহত রাখার আশা প্রকাশ করেছেন বাংলাদেশ ওয়ানডে দলের দলনেতা মাশরাফি। সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচ আগামীকাল বুধকার (২৫ জুলাই) বাংলাদেশ সময় রাত সাড়ে ১২টা গায়ানায় অনুষ্ঠিত হবে। ওই ম্যাচে জয় পেলে এক ম্যাচ হাতে রেখেই সিরিজ নিশ্চত করতে পারবে বাংলাদেশ।

এদিকে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে প্রথম ওয়ানডেতে জয়ের দুই মূল কারিগর তামিম ইকবাল ও সাকিব আল হাসানের উচ্ছসিত প্রশংসা করলেন বাংলাদেশ অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা। দ্বিতীয় উইকেটে ২৫৮ বলে ২০৭ রানের জুটি গড়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে বাংলাদেশের জয়ের ভীত গড়েন ওপেনার তামিম ইকবাল ও টেস্ট অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। সেই ভীতেই শেষ পর্যন্ত ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ৪৮ রানের ব্যবধানে হারায় বাংলাদেশ।

তামিম-সাকিবের প্রশংসা করে বাংলাদেশ অধিনায়ক বলেন, ‘শুরুর দিকে ব্যাটিং করা কঠিনই ছিল। তবে উইকেটে সেট হয়ে ঠান্ডা মাথায় খুবই ভালো খেলেছে তামিম ও সাকিব। ম্যাচ জয়ের পথ তারাই তৈরি করেছে।’

গায়নার প্রোভিডেন্স স্টেডিয়ামে টস জিতে প্রথমে ব্যাট করার সিদ্বান্ত নেন বাংলাদেশ অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা। দলনেতাকে ভালো শুরু এনে দিতে পারেননি ওপেনার এনামুল হক বিজয়। ইনিংসের নবম বলেই রানের খাতা খোলার আগেই প্যাভিলিয়নে ফিরে যান বিজয়।

শুরুতেই বিজয়ের বিদায়ে ইনিংসের দশম বলে উইকেটে আসতে হয় সাকিব আল হাসানকে। আরেক ওপেনার তামিমকে নিয়ে মাথা ঠান্ডা করে খেলা শুরু করেন তিন নম্বরে ব্যাট হাতে নামা সাকিব। মন্থর উইকেটের অবস্থা বুঝে, দেখেশুনেই খেলতে থাকেন তারা। ফলে রান তোলার গতিও ছিল বেশ মন্থর। তবে উইকেটে সেট হয়ে রানের চাকা সচল রেখে বাংলাদেশকে বড় স্কোরের পথ দেখিয়ে দেন তামিম ও সাকিব।

তামিম সেঞ্চুরি করে ১৩০ রানে অপরাজিত থাকলেও ৯৭ রানে আউট হন সাকিব। দ্বিতীয় উইকেটে বাংলাদেশের হয়ে রেকর্ড জুটি গড়েছেন তামিম ও সাকিব। তাদের রেকর্ডের পর শেষদিকে ১১ বলে ৩০ রানের টর্নেডো ইনিংস খেলেন মুশফিকুর রহিম। ফলে ৫০ ওভারে ৪ উইকেটে ২৭৯ রানের সংগ্রহ পায় বাংলাদেশ।

ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ২৮০ রানের টার্গেট দিতে পেরে আত্মবিশ্বাসীই ছিলেন বাংলাদেশ অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা। তিনি বলেন, ‘২৭৯ রানের পুঁজিতে আমি আত্মবিশ্বাসী ছিলাম। দলের সবাই নিজেকে উজার করে দিতে প্রস্তুত ছিল। ওয়ানডেতে আমাদের বোলিং আক্রমণ যথেষ্ট ভালো। বিশ্বসেরা বলব না, তবে ভালো। ভালো স্কোর পেলে এবং দ্রুত উইকেট পেলে যেকোনো কিছুই করা সম্ভব। সেই আত্মবিশ্বাস নিয়ে আমরা বোলিং শুরু করি। গেইল ও লুইসকে দ্রুত ফেরাতে চেয়েছি, শেষ পর্যন্ত আমরা পেরেছি। পরবর্তীতে তাদের ব্যাটিং লাইন-আপকে চাপের মধ্যে রাখতে পেরেছি। যে কারণে ফল আমাদের পক্ষেই গিয়েছে।’

টেস্ট সিরিজে চরমভাবে বিধ্বস্ত হবার পর ওয়ানডে এমন উড়ন্ত সূচনা বাংলাদেশের। ওয়ানডে সিরিজ শুরুর আগে মাশরাফি পুরো দলকে কি বলেছিলেন? এমন প্রশ্নের জবাবে ম্যাশ জানান, ‘বিশেষ কিছু বলার ছিল না। শুধু বলেছিলাম, দেশের জন্য নিজেদেরকে উজাড় করে দিতে। টেস্ট সিরিজের কথা ভুলে গিয়ে নতুনভাবে সবকিছু শুরু করতে। শুরুটা ভালো হলে আত্মবিশ্বাস বেড়ে যায় এবং পরবর্তীতে কাজও সহজ হয়ে যায়। নিজেদের পরিকল্পনাগুলো কাজে লেগেছে। আশা করি ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে সক্ষম হব।’

তামিম-সাকিবের প্রশংসা করার পাশাপাশি মুশফিক ও নিজ দলের অন্যান বোলারাদের কথাও বলেছেন মাশরাফি। তবে নিজের ব্যাপারে এবারও এড়িয়ে গেলেন ম্যাচে ৩৭ রানে ৪ উইকেট নেয়া মাশরাফি।


শেয়ার করুন :


আরও পড়ুন

হতাশা কাটিয়ে বাংলাদেশের দুর্দান্ত জয়

হতাশা কাটিয়ে বাংলাদেশের দুর্দান্ত জয়

১১ বছরের রেকর্ড ভাঙলেন তামিম-সাকিব

১১ বছরের রেকর্ড ভাঙলেন তামিম-সাকিব

সাকিব টেস্ট খেলতে চান না : পাপন

সাকিব টেস্ট খেলতে চান না : পাপন

বাংলাদেশ ‘এ’ দলে মোমিনুল, সৌম্য ও তাসকিন

বাংলাদেশ ‘এ’ দলে মোমিনুল, সৌম্য ও তাসকিন