প্রথম সেঞ্চুরিতেই তিন বড় ভাইয়ের পাশে মিরাজ

স্পোর্টসমেইল২৪ স্পোর্টসমেইল২৪ প্রকাশিত: ০৪:১৩ পিএম, ০৪ ফেব্রুয়ারি ২০২১
প্রথম সেঞ্চুরিতেই তিন বড় ভাইয়ের পাশে মিরাজ

টেস্ট ক্যারিয়ারে প্রথমবারের মতো সেঞ্চুরি করেছেন টাইগার অলরাউন্ডার মেহেদী হাসান মিরাজ। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ব্যাট হাতে আট নম্বরে নেমে ১০৩ রান করেন তিনি। টেস্ট ক্যারিয়ারে নিজের প্রথম সেঞ্চুরিতেই তিন বড় ভাই- খালেদ মাসুদ, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ এবং সোহাগ গাজীর পাশে নিজের নাম লিখিয়েছেন মেহেদী হাসান মিরাজ।

সফররত ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে দ্বিতীয় দিন বৃস্পতিবার (৪ ফেব্রুয়ারি) শুরুর ১৪তম বলেই লিটন কুমার দাস আউট হলে ব্যাট হাতে সাকিব আল হাসানের সঙ্গী হন মিরাজ। দ্রুতই উইকেট হারালেও সাকিব-মিরাজের জুটিতে রানের চাকা সচল রাখে বাংলাদেশ।

প্রথম দিনের পঞ্চম উইকেটে সাকিব-মুশফিকুর রহিমের ১০৮ বলে ৫৯ রান ছিল বাংলাদেশের প্রথম ইনিংসের সেরা জুটি। দ্বিতীয় দিন ওই জুটিকে ছাপিয়ে যান সাকিব ও মিরাজ। সপ্তম উইকেট জুটিতে ১৩০ বলে ৬৭ রান যোগ করেন তারা।

ব্যক্তিগত ৬৮ রানে সাকিব ফিরে গেলেও তাইজুল ইসলাম, নাঈম হাসান এবং মোস্তাফিজের সাথে জুটি বেঁধে নিজের টেস্ট ক্যারিয়ারের প্রথম সেঞ্চুরি হাঁকান মেহেদী হাসান মিরাজ। ইনিংসের ১৪৭তম ওভারের চতুর্থ বলে ওয়ারিকানের ডেলিভারিতে প্যাডেল সুইপে ২ রান তুলে সেঞ্চুরি পূর্ণ করেন তিনি।
sportsmail24
টেস্ট ক্যারিয়ারের ২৩তম ম্যাচে প্রথম সেঞ্চুরি পূর্ণ করতে ২২৪ মিনিট উইকেটে থেকে ১৬০টি বল মোকাবেলা করেন মেহেদী হাসান মিরাজ। এর আগে দ্বিতীয় দিনের মধ্যাহ্ন বিরতি থেকে ফিরে হাফ-সেঞ্চুরি পূরণ করেন মিরাজ।

বাংলাদেশের টেস্ট ক্রিকেটের ইতিহাসে আট নম্বরে ব্যাট হাতে নেমে মিরাজের সেঞ্চুরিটি চতুর্থ। এর আগে খালেদ মাসুদ, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ এবং সোহাগ গাজী আট নম্বরে ব্যাট হাতে নেমে সেঞ্চুরি করেছিলেন। ফলে টেস্ট ক্যারিয়ারে নিজের প্রথম সেঞ্চুরি করেই তিন বড় ভাইয়ের পাশে নিজের নাম তুলে নিলেন মেহেদী হাসান মিরাজ।

২০০৪ সালে ড্যারেন স্যামি জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে আট নম্বরে ব্যাট করতে নেমে অপরাজিত ১০৩ রানের ইনিংস খেলেছিলেন খালেদ মাসুদ। এছাড়া ২০১০ সালে সালে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ এবং ২০১৩ সালে সোহাগ গাজী আট নম্বরে ব্যাট হাতে নেমে সেঞ্চুরি করেছিলেন।

এদিকে টেস্ট ক্যারিয়ারে ২৩তম ম্যাচে এসে প্রথম সেঞ্চুরির দেখা পেলেন মিরাজ। এর আগে ২২টি টেস্ট ম্যাচে মিরাজের ব্যাট হাতে দুটি হাফ-সেঞ্চুরি রয়েছে। এছাড়া সর্বোচ্চ ইনিংস ছিল অপরাজিত ৬৮ রানের।

[sportsmail24.com এখন sportsmail.com.bd ঠিকানাতেও। খেলাধুলার ভিডিও-ছবি এবং  সর্বশেষ সংবাদ পড়তে ব্রাউজ করুন যেকোন ঠিকানায়। এছাড়া অ্যান্ড্রয়েড মোবাইলে ইনস্ট্রল করে নিতে আমাদের অ্যাপস ]


শেয়ার করুন :


আরও পড়ুন

শীর্ষ পাঁচে নাম আসবে, চিন্তাও করেননি মিরাজ

শীর্ষ পাঁচে নাম আসবে, চিন্তাও করেননি মিরাজ

রানে তামিম, উইকেটে সেরা মিরাজ

রানে তামিম, উইকেটে সেরা মিরাজ

দলের প্রয়োজনে একাদশের বাহিরেও থাকতে রাজি মিরাজ

দলের প্রয়োজনে একাদশের বাহিরেও থাকতে রাজি মিরাজ

টিকতে পারলেন না তামিম, সিংহাসন পুনরুদ্ধার মুশফিকের

টিকতে পারলেন না তামিম, সিংহাসন পুনরুদ্ধার মুশফিকের