অস্ট্রেলিয়ার কাছে বিধ্বস্ত দ. আফ্রিকা

স্পোর্টস মেইল২৪ ডেস্ক
প্রকাশিত: ১১:৫৮ পিএম, ০৫ মার্চ ২০১৮
অস্ট্রেলিয়ার কাছে বিধ্বস্ত দ. আফ্রিকা

রেকর্ড ৪১৭ রান তাড়া করতে নেমে শুরুতে বিধ্বস্ত হয়েছিল দক্ষিণ আফ্রিকা। একটা সময় অস্ট্রেলিয়ার কাছে তাদের অসহায় আত্মসমর্পণের সম্ভাবনা উঁকি দিচ্ছিল। তবে এইডেন মারক্রামের অনবদ্য এক ইনিংসে ঘুরে দাঁড়ায় প্রোটিয়ারা, জয়ের আভাসও দিয়েছিল তার ইনিংস। সেটা এক নিমিষে শেষ হয়ে যায় মিচেল স্টার্কের আগুন ঝরানো এক ওভারে।

ডারবানে প্রথম টেস্ট জেতার জন্য আর একটি উইকেট দরকার অস্ট্রেলিয়ার। দক্ষিণ আফ্রিকা চতুর্থ দিনের খেলা শেষ করেছে ৯ উইকেটে ২৯৩ রানে। এখনও তাদের সামনে ১২৪ রানের লক্ষ্য।

চতুর্থ দিন সকাল সকাল বাকি একটি উইকেট নিয়ে অস্ট্রেলিয়াকে ২২৭ রানে অলআউট করে দক্ষিণ আফ্রিকা। এরপর লাঞ্চের আগেই চার ব্যাটসম্যানকে ক্রিজ ছাড়তে দেখেছেন মারক্রাম। ৪৯ রানে ৪ উইকেট হারালেও একপ্রান্ত আগলে রেখেছিলেন এই ওপেনার। এই বিপদ সামলে নেন তিনি থেউনিস ডি ব্রুইনের সঙ্গে ৮৭ রানের জুটি গড়ে।

একা হাতে প্রতিরোধ গড়েছিলেন মারক্রামদ্বিতীয় সেশনে দারুণ প্রতিরোধ গড়েছিল প্রোটিয়ারা। লাঞ্চ থেকে চা বিরতির মাঝে কেবল একটি উইকেট হারায় স্বাগতিকরা। ডি ব্রুইন ৩৬ রানে আউট হলে কুইন্টন ডি ককের সঙ্গে মারক্রামের একশ ছাড়ানো জুটিতে ফিকে হয়ে যাওয়া জয়ের স্বপ্ন আবার দেখতে থাকে তারা। ১৭১ বলে ক্যারিয়ারের তৃতীয় সেঞ্চুরি পান প্রোটিয়া ওপেনার। কিন্তু মিচেল মার্শের বলে ১৪৭ রানের এই জুটি ভাঙতেই শেষ হয়ে যায় সব সম্ভাবনা।

২১৮ বলে ১৯ চারে ১৪৩ রান করেন মারক্রাম। ৩৪০ মিনিট ক্রিজ আঁকড়ে ধরে ছিলেন তিনি। এরপর ৮০তম ওভারে স্টার্কের আগুনে পুড়ে ছারখার স্বাগতিকদের ব্যাটিং লাইনআপ। ওই ওভারের দ্বিতীয়, পঞ্চম ও ষষ্ঠ বলে ভারনন ফিল্যান্ডার, কেশব মহারাজ ও কাগিসো রাবাদাকে ফেরান অসি পেসার।

বাকি একটি উইকেটের জন্য আলোকস্বল্পতার মাঝেও আরও ৯ ওভার বল করেছে অস্ট্রেলিয়া। কিন্তু ডি কক ও মর্নে মরকেলের প্রতিরোধে ম্যাচ শেষ দিনে যায়। ১৩৮ বলে ৮১ রানে অপরাজিত ডি কক, আর মরকেল ২৭ বল খেলে রানের খাতা খোলেননি।


শেয়ার করুন :


আরও পড়ুন

বিদায় বললেন মরকেল

বিদায় বললেন মরকেল

দুসরাকে নিষিদ্ধ না করার অনুরোধ হাফিজের

দুসরাকে নিষিদ্ধ না করার অনুরোধ হাফিজের

নিদাহাস ট্রফিতে জাকির-আফিফদের না থাকার কারণ

নিদাহাস ট্রফিতে জাকির-আফিফদের না থাকার কারণ

পাঞ্জাবের নতুন অধিনায়ক অশ্বিন

পাঞ্জাবের নতুন অধিনায়ক অশ্বিন