আফ্রিদির মন্তব্যে মিয়াদাঁদের কড়া জবাব

স্পোর্টস মেইল২৪ ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৪:৫৯ পিএম, ১৭ নভেম্বর ২০১৮
আফ্রিদির মন্তব্যে মিয়াদাঁদের কড়া জবাব

ফাইল ছবি

পাকিস্তানের আরেক সাবেক ক্রিকেটার শহীদ আফ্রিদি কাশ্মীর ইস্যুতে বক্তব্য দেওয়ার কড়া জবাব দিয়েছেন সেদেশের কিংবদন্তি ক্রিকেটার জাভেদ মিয়াঁদাদ। রাজনীতিসহ অন্যান্য স্পর্শকাতর বিষয়ে ক্রিকেটারদের নাক গলিয়ে বিতর্কে জড়ানোর দরকার নেই বলে তিনি মনে করেন।

কিছুদিন আগে পাকিস্তানের আরেক সাবেক ক্রিকেটার শহীদ আফ্রিদি কাশ্মীর ইস্যুতে একটা বক্তব্য দেন, যা ভাইরাল হয়েছে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে। আর এতেই চটেছেন মিয়াঁদাদ, ‘আমি বলতে চাই আফ্রিদি যা বলেছে তা একদমই অনাকাঙ্ক্ষিত, সে চাইলে এটা নাও বলতে পারত।’

গত বুধবার একটি ভিডিওর কিছু অংশ ছড়িয়ে পড়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে। সেই ভিডিওতে আফ্রিদিকে বলতে দেখা যায়, ‘আমার মনে হয় না কাশ্মীরকে পাকিস্তানের দরকার আছে।

কাশ্মীরের কর্তৃত্ব ভারতকেও দেওয়ার দরকার নেই। কাশ্মীরের একটা আলাদা সার্বভৌম রাষ্ট্র হিসেবে স্বীকৃতি পাওয়া উচিত।’ এই বক্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতেই মিয়াঁদাদ ক্রিকেটারদের পরামর্শ দিলেন রাজনীতি থেকে দূরে থাকার।

এদিকে আফ্রিদি কাল টুইট করে তাঁর অবস্থান পরিষ্কার করেছেন, ‘বেশ কিছুদিন ধরেই আমার একটা ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমগুলোতে দেখা যাচ্ছে, ভিডিওটা সম্পূর্ণ নয়। অসম্পূর্ণ একটা ভিডিও ভারতীয় মিডিয়ায় প্রসঙ্গ-বহির্ভূত হয়ে আমার নামে বিভ্রান্তি ছড়াচ্ছে, আমি আমার দেশকে যথেষ্ট ভালোবাসি আর কাশ্মীরিদের জীবনযুদ্ধ সম্পর্কে আমার বেশ ভালোই জানা আছে।’

তিনি আলো বলেন, মনবতার জয় হোক, কাশ্মীরিরা তাদের অধিকার ফেরত পাক। কাশ্মীর বহুদিন ধরেই একটা বিতর্কের বিষয় হয়ে আছে, ভারতের অধীনে তারা অনেক যন্ত্রণা সহ্য করে আছে। অন্যান্য পাকিস্তানিদের মতো আমিও তাদের স্বাধীনতা সংগ্রামকে সমর্থন জানাই, কেননা কাশ্মীর পাকিস্তানের।’

 


শেয়ার করুন :


আরও পড়ুন

অধিনায়ক সাকিবের সঙ্গে ফিরলেন সৌম্যও

অধিনায়ক সাকিবের সঙ্গে ফিরলেন সৌম্যও

এসিসি'র চতুর্থ বাংলাদেশি হিসেবে সভাপতি হলেন পাপন

এসিসি'র চতুর্থ বাংলাদেশি হিসেবে সভাপতি হলেন পাপন

মোস্তাফিজ বাদ পড়লেও সাকিবকে ধরে রাখলো

মোস্তাফিজ বাদ পড়লেও সাকিবকে ধরে রাখলো

ক্ষুদেবার্তায় স্টার্কের সাথে সম্পর্ক শেষ করলো কেকেআর

ক্ষুদেবার্তায় স্টার্কের সাথে সম্পর্ক শেষ করলো কেকেআর