ম্যানইউ’র দুর্দান্ত জয়, তৃতীয় স্থানে টটেনহ্যাম

স্পোর্টস মেইল২৪ ডেস্ক
প্রকাশিত: ০৫:৩২ পিএম, ০৭ অক্টোবর ২০১৮
ম্যানইউ’র দুর্দান্ত জয়, তৃতীয় স্থানে টটেনহ্যাম

দুই গোলে পিছিয়ে থেকেও শেষ পর্যন্ত নিউক্যাসেলের বিপক্ষে ৩-২ গোলের দুর্দান্ত এক জয় তুলে নিয়েছে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। এ জয়ের মাধ্যমে পাঁচ ম্যাচ পরে ইউনাইটেড শুধু জয়ের ধারায় ফিরেনি একইসাথে তোপের মুখে থাকা হোসে মরিনহোর মুখেও হাসি ফিরিয়ে এনেছে।

দারুন এ জয়ে আপাতত মরিনহোর প্রতি ইউনাইটেড বোর্ড আস্থা পোষণ করেছে বলে ইঙ্গিত পাওয়া গেছে। দিনের অপর ম্যাচে এরিক ডায়ারের একমাত্র গোলে কার্ডিফ সিটিকে পরাজিত করে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের বড় পরাজয়ের হতাশা কাটিয়ে জয়ের ধারায় ফিরেছে টটেনহ্যাম হটস্পার। এ জয়ে তারা প্রিমিয়ার লিগ টেবিলের তৃতীয় স্থানেও উঠে এসেছে।

গত ২৯ বছরে লিগে সবচেয়ে বাজেভাবে মৌসুম শুরু করার কারনে মরিনহোর ভবিষ্যত নিয়ে আলোচনা শুরু হয়। সাত ম্যাচ পর মাত্র তিনটিতে জয় নিয়ে টেবিলের ১০ম স্থানে থেকে ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে নিউক্যাসেলের মুখোমুখি হয়েছিল রেড ডেভিলসরা। দলের এ বাজে পারফরমেন্সের পিছনে তারকা মিডফিল্ডার পল পগবাসহ দলের বেশ কয়েকজন গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড়ের সাথে মরিনহোর শীতল সম্পর্কেও বিষয়টিও সামনে চলে আসে।

এর মধ্যে শুক্রবার বিভিন্ন বৃটিশ গণমাধ্যমে প্রকাশিত রিপোর্টে বলা হয় নিউক্যাসেলের বিপক্ষে ফলাফল যাই হোক না কেন মরিনহোর সাথে ইউনাইটেডের সম্পর্ক শেষ হবার বিষয়ে অধিকাংশ বোর্ড সদস্য মত দিয়েছেন।

কিন্তু ইউনাইটেডের অভিজ্ঞ এক সূত্র চলতি সপ্তাহে মরিনহোর ব্যপারে এই ধরনের সিদ্ধান্তের বিরোধীতা করেছেন। ধারাবাহিক ব্যর্থতার পরেও মরিনহোর পক্ষেই সবাই রয়েছে বলে সূত্রটি জোড়ালো ইঙ্গিত দিয়েছে। ঘরের মাঠে নিউক্যাসেলের বিপক্ষে ম্যাচের মাত্র ১০ মিনিটের মধ্যেই দুই গোলে পিছিয়ে পড়ার পর মরিনহোকে নিয়ে দুঃশ্চিন্তা শুরু হয়। কিন্তু সময়মত নিজেদের ঠিকই প্রমান করে ইউনাইটেড তাদের বসকে আর নীচু হতে দেয়নি। মূল একাদশে জায়গা না হলেও বদলী বেঞ্চ থেকে উঠে এসে চিলির ফরোয়ার্ড এ্যালেক্সিস সানচেজ শেষ মিনিটে জয়সূচক গোলটি করেছেন। যদিও তার আগে হুয়ান মাতা ও এ্যান্থনী মার্শালের গোলে সমতায় ফিরেছিল ইউনাইটেড।

আন্তর্জাতিক বিরতির আগে সব ধরনের প্রতিযোগিতায় টানা পাঁচ ম্যাচ জয়বিহীন থাকা ইউনাইটেডের জন্য এ জয় কিছুটা হলেও মরিনহোকে স্বস্তি ফিরিয়ে দিয়েছে। যে কারণে ম্যাচ শেষে সমালোচকদের উদ্দেশ্যে মরিনহো বলেছেন, ‘আমার বয়স ৫৫ বছর। এই প্রথমবার আমি মানুষের দ্বারা শিকার হওয়ার অর্থ দেখেছি। বিষয়গুলো অনেক ভালোভাবেও হতে পারতো। কিন্তু আমি এই কয়দিনে এসবের সাথে নিজেকে মানিয়ে নিয়েছি। কিন্তু কিছু কিছু খেলোয়াড় বিষয়গুলো ভালোভাবে নিতে পারেনি।’

বলেন, ‘জকের ম্যাচেও তেমনি কিছু ঘটতে যাচ্ছিল। প্রতিটি বলই আমাদের অনুকূলে ছিল, কিন্তু কোন ভুল সিদ্ধান্ত, নিজেদের ভুলের কারনে গোল হচ্ছিল না। বিরতির সময় আমরা বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করেছি। দ্বিতীয়ার্ধে ভিন্ন মেজাজে দল মাঠে নামে, তাদের মধ্যে ভিন্ন এক আত্মবিশ্বাসের জন্ম নেয় যা আমাদের জয় উপহার দিয়েছে।’

দ্বিতীয়ার্ধে গোলের জন্য মরিয়া হয়ে ওঠা ইউনাইটেড বস স্কট ম্যাকটমিনের পরিবর্তে মারোনে ফেলাইনিকে মাঠে নামান। ৭০ মিনিটে ফ্রি-কিক থেকে শেষ পর্যন্ত মাতা এক গোল পরিশোধ করেন। ৬ মিনিট পর মার্শাল পগবার সহায়তায় দলের পক্ষে সমতা ফেরালে ম্যাচে উত্তেজনা দেখা দেয়। কিন্তু ম্যাচের মূল নাটকীয়তা তখনো বাকি ছিল। ৯০ মিনিটে সানচেজ দারুন এক গোল করলে ইউনাইটেডের জয় নিশ্চিত হয়।

ওয়েম্বলীতে টটেনহ্যাম বুধবার চ্যাম্পিয়ন্স লিগে বার্সেলোনার কাছে ৪-২ গোলের পরাজয়ের হতাশা থেকে বেরিয়ে জয় তুলে নিয়েছে। এরিক ডায়ারের ৮ মিনিটের গোলে কার্ডিফ সিটিকে পরাজিত করে ৮ ম্যাচে ১৮ পয়েন্টসহ প্রিমিয়ার লিগ টেবিলের তৃতীয় স্থানে উঠে এসেছে। এক পয়েন্ট করে এগিয়ে শীর্ষ দুটি স্থানে রয়েছে ম্যানচেস্টার সিটি ও লিভারপুল।

এ ছাড়া দিনের অপর ম্যাচগুলোতে উল্ফস ১-০ গোলে ক্রিস্টাল প্যালেসকে, এভারটন ২-১ গোলে লিস্টার সিটিকে, বোর্নেমাউথ ৪-০ গোলে বিধ্বস্ত করেছে ওয়াটফোর্ডকে। বার্নালি ও হাডার্সফিল্ডের ম্যাচটি ১-১ গোলে ড্র হয়েছে।


শেয়ার করুন :


আরও পড়ুন

তাজিকিস্তানকে সঙ্গে নিয়ে সেমিতে ফিলিস্তিন

তাজিকিস্তানকে সঙ্গে নিয়ে সেমিতে ফিলিস্তিন

রোনালদোর পাশে জুভেন্টাস

রোনালদোর পাশে জুভেন্টাস

মেসিকে শরীরি প্রদর্শনে মিস বামবামের শ্রদ্ধা

মেসিকে শরীরি প্রদর্শনে মিস বামবামের শ্রদ্ধা

মেসির নৈপুণ্যে রোমাঞ্চকর জয় পেল বার্সা

মেসির নৈপুণ্যে রোমাঞ্চকর জয় পেল বার্সা